সরকারিকরণের দাবিতে লাগাতার অবস্থানের ঘোষণা ইবতেদায়ি শিক্ষকদের

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা

চলতি বাজেটে মাদরাসাগুলো সরকারিকরণের ঘোষণা না এলে আগামী ১ জুলাই থেকে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে লাগাতার অবস্থান কর্মসূচি পালনের ঘোষণা দিয়েছেন স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদরাসা শিক্ষক সমিতির নেতারা। ‘দেয়ালে পিঠ ঠেকে যাওয়ায়’ মহামারির মধ্যেই কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন সমিতির মহাসচিব কাজী মোখলেছুর রহমান।

রবিবার সকালে গাইবান্ধা জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সামনে মানববন্ধন করে এ ঘোষণা দেন সমিতির কেন্দ্রীয় নেতারা।

রবিবার (২১ জুন) স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদরাসা এ দাবিতে সারাদেশের বিভিন্ন জেলায় মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছেন শিক্ষকরা। মানবন্ধন শেষে জেলা প্রশাসকদের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী ও শিক্ষামন্ত্রীকে স্মারকলিপি দিয়েছেন শিক্ষকরা।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন সমিতির মহাসচিব কাজী মোকলেছুর রহমান , গাইবান্ধা জেলা শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক জাহিদুল ইসলামসহ উপজেলা কমিটির নেতারা। শারীরিক দূরত্ব মেনে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেন শিক্ষকরা।

মানববন্ধনে শিক্ষকরা সাত দফা দাবি জানান তাদের এ দাবিগুলোর মধ্যে রয়েছে, প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোর মত মুজিববর্ষ উপলক্ষে স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদরাসা সরকারিকরণ, ইবতেদায়ি মাদরাসার নীতিমালা সংশোধন করে আলিম শিক্ষকের পরিবর্তে এইচএসসি পাস শিক্ষক অন্তর্ভুক্ত করা, কোড বিহীন স্বতন্ত্র মাদরাসাগুলো বোর্ড কর্তৃক কোড নম্বর অন্তর্ভুক্তকরণ, প্রাথমিকের ন্যায় স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদরাসাগুলোকে স্থায়ী রেজিস্ট্রেশনের ব্যবস্থা, প্রাথমিকের ন্যায় প্রতিটি স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদরাসায় অফিস সহায়ক নিয়োগ, প্রাথমিকের ন্যায় স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদরাসা শিক্ষকদের প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা গ্রহণ এবং প্রাথমিকের ন্যায় স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদারাসাগুলোতে আসবাবপত্র সরবরাহসহ ভবন নির্মাণ করা।

একই দাবিতে নীলফামারী জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সামনে মানববন্ধন করেছেন শিক্ষকরা। এতে অংশ নেন জেলা কমিটির সভাপতি আবু মুসাসহ জেলা ও উপজেলা কমিটিগুলোর নেতারা।

করোনা মহামারির মধ্যে সভা সমাবেশ নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এরমধ্যে লাগাতার অবস্থান কর্মসূচি ঘোষণা সম্পর্কে জানতে চাইলে মহাসচিব কাজী মোখলেছুর রহমান গণমাধ্যমকে বলেন, করোনাভাইরাস মহামারির মধ্যে মানবতার জীবনযাপন করছেন শিক্ষকরা এই অবস্থায় আমাদের দেয়ালে পিঠ ঠেকে গেছে। তাই সরকারিকরণের দাবি জানিয়ে শারীরিক দূরত্ব মেনে মানববন্ধন করেছি।

তিনি আরও বলেন, সরকার প্রতিষ্ঠানগুলো তথ্য সংগ্রহ করছে। যাচাই-বাছাই করে প্রকৃত প্রতিষ্ঠানগুলোর শিক্ষকদের কথা বিবেচনায় নিয়ে সরকারিকরণের দাবি জানাচ্ছি। আগামী ১ জুলাইয়ের মধ্যে সরকারিকরণের ঘোষণা না এলে লাগাতার অবস্থান কর্মসূচি ঘোষণা করেছি।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error: Content is protected !!