লকডাউন ভেঙে পারিবারিক ভ্রমণে ট্রাম্প কন্যা ইভাঙ্কা

প্রাণঘাতী করোনা মোকবিলায় হিমশিম খাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র। দেশটির প্রায় ৫০টি অঙ্গরাজ্যেই ছড়িয়ে পড়েছে করোনা। করোনার বিস্তার ঠেকাতে লকডাউন জারি করা হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রেও। থমকে গেছে দেশটির অর্থনীতির চাকা। তারপরও করোনায় মৃত্যুপুরী এখন যুক্তরাষ্ট্র। আক্রান্ত ও মৃত্যুতে বিশ্বের সকল দেশকেই ছাড়িয়ে গেছে।

এমন পরিস্থিতিতে লকডাউন ভেঙ্গে পারিবারিক ভ্রমণ করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কন্যা ইভাঙ্কা ট্রাম্প।

নিউ ইয়র্ক টাইমসের প্রতিবেদনে বলা হয়, গত ১ এপ্রিল বাড়িতে থাকার নির্দেশ জারি হওয়ার পর লকডাউন ভেঙ্গে ইভাঙ্কা তার স্বামী ও তিন সন্তানকে নিয়ে ওয়াশিংটন থেকে নিউ জার্সিতে ট্রাম্পের মালিকানাধীন গলফ ক্লাবে গেছেন।

জানা গেছে, একটি পারিবারিক অনুষ্ঠানে যোগদান শেষে ট্রাম্পের জামাতা জারেদ কুশনার ওয়াশিংটনে ফিরলেও তার মেয়ে ইভাঙ্কা ফেরেনি। ইতিমধ্যে নিউ জার্সি থেকে বাবা প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে করোনা পরিস্থিতি নিয়ে দুইবার কথা বলেছেন ইভাঙ্কা। এমনটিও দাবি করেছে নিউ ইয়র্ক টাইমস। তবে এ বিষয়ে হোয়াইট হাউজের পক্ষ থেকে বলা হয়, সে তার ব্যক্তিগত কাজে সেখানে গিয়েছে। কোন বাণিজ্যিক কাজে নয়।

ওয়ার্ল্ড ও মিটারের দেয়া তথ্য অনুযায়ী যুক্তরাষ্ট্রে এ পর্যন্ত করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৬ লাখ ৭৮ হাজার ২১০ জন। মারা গেছেন ৩৪ হাজার ৬৪১ জন।

এদিকে সামনের মাসগুলোয় রাজ্যগুলোর অর্থনীতি পুনরায় চালু করার বিষয়ে গভর্নরদের দিকনির্দেশনা দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ।

ওপেনিং আপ আমেরিকা এগেইন শীর্ষক ওই নির্দেশনায় তিনটি পর্যায়ের রূপরেখা তুলে ধরা রয়েছে যাতে রাজ্যগুলো ধীরে ধীরে তাদের লকডাউন শিথিল করতে পারে। ট্রাম্প গভর্নরদের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন তারা কেন্দ্রীয় সরকারের সহায়তায় এই প্রক্রিয়াটি পরিচালনা করবেন।
ট্রাম্প যে পরামর্শ দিয়েছেন কিছু রাজ্য এই মাসে আবারও চালু হতে পারে।

যুক্তরাষ্ট্রে এ পর্যন্ত ছয় লাখ ৫৪ হাজার ৩০১ জনের মধ্যে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে ।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error: Content is protected !!