মৃত্যুর দুয়ার থেকে বাসায় ফিরলেন বরিস জনসন

হাসপাতাল ছাড়লেন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন। করোনায় আক্রান্ত হওয়ার এক পর্যায়ে আইসিইউতেও নেয়া হয়েছিল তাকে। যেন মৃতু্্যর দুয়ার থেকে ফিরলেন তিনি। হাসপাতাল থেকে বেরিয়ে ব্রিটিশ এই প্রধানমন্ত্রী হাসপাতালের চিকিৎসক এবং নার্সদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন।

রোববার লন্ডনের সেন্ট থমাস হাসপাতাল থেকে স্থানীয় সময় সকালের দিকে বরিস জনসন ছাড় পেয়েছেন বলে জানিয়েছে ডাউনিং স্ট্রিট। ১০ নং ডাউনিং স্ট্রিটের একজন মুখপাত্র বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের শারীরিক অবস্থার ধারাবাহিক উন্নতি ঘটায় চিকিৎসকরা তাকে হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দিয়েছেন।

মুখপাত্র বলেছেন, তবে চিকিৎসকদের পরামর্শ অনুযায়ী তিনি এখনই কাজে ফিরতে পারবেন না। চমৎকার সেবা দেয়ার জন্য তিনি সেন্ট থমাস হাসপাতালের চিকিৎসক, নার্স এবং অন্যান্য কর্মীদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন।

গত ২৭ মার্চ ব্রিটিশ এই প্রধানমন্ত্রীর শরীরে করোনার উপস্থিতি ধরা পড়ে। ব্রিটিশ সরকারের প্রথম কোনো শীর্ষস্থানীয় নেতা হিসেবে তিনিই প্রথম করোনায় আক্রান্ত হন। কয়েকদিন স্বেচ্ছা আইসোলেশনে থাকাকালীন অবস্থার অবনতি হলে তাকে হাসপাতালে নেয়া হয়। পরে শারীরিক অবস্থার আরও অবনতি ঘটলে বরিস জনসনকে হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি করা হয়।

ব্রিটেনে এখন পর্যন্ত এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৭৮ হাজার ৯৯১ এবং মারা গেছেন ৯ হাজার ৮৭৫ জন। দেশটিতে প্রতিনিয়ত লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে আক্রান্ত এবং মৃতের সংখ্যা।

দেশটির স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন, আগামী দুই সপ্তাহের প্রত্যেকদিন ব্রিটেনে গড়ে এক হাজার মানুষের প্রাণ কেড়ে নিতে পারে। এদিকে করোনায় মৃতের দিকে থেকে সবদেশকে ছাড়িয়ে গেছে যুক্তরাষ্ট্র।

প্রসঙ্গত, চীনের উহান থেকে ছড়িয়ে পড়া করোনা আঘাত হেনেছে বিশ্বের ২২০টিরও বেশি দেশে। বিশ্বজুড়ে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৭ লাখ ৯০ হাজার ৮২৪ এবং প্রাণ হারিয়েছেন ১ লাখ ৯ হাজার ৬৬২ জন। তবে সুস্থ হয়ে বাসায় ফিরেছেন ৪ লাখ ৯ হাজার ৫৬৮ জন।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error: Content is protected !!