মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশ হাইকমিশন থেকে পাসপোর্ট পেতে অনলাইনে অ্যাপয়েন্টমেন্ট

চলমান করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে মালয়েশিয়ার বাংলাদেশ হাইকমিশন থেকে পাসপোর্ট পেতে (সংগ্রহে) অনলাইনে অ্যাপয়েন্টমেন্ট নিতে হবে। এ সংক্রান্ত একটি নোটিশ প্রকাশ করেছে মিশন কর্তৃপক্ষ। গত ২৭ আগস্ট ডেপুটি হাইকমিশনার ওয়াহিদা আহমেদ স্বাক্ষরিত একটি নোটিশ মিশনের ফেসবুক পেজে প্রকাশ করার পর ব্যাপক সাড়া পড়েছে।

নোটিশে বলা হয়েছে, পাসপোর্টের সেবা গ্রহণ কার্যক্রমকে সহজীকরণ এবং চলমান করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের ফলে মালয়েশিয়া সরকার প্রদত্ত স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ ( (SOP) বাধ্যবাধকতার প্রেক্ষাপটে পাসপোর্ট বিতরণে অনলাইনভিত্তিক অ্যাপয়েন্টমেন্টের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। আর এ উদ্যোগ আগামী ৭ সেপ্টেম্বর থেকে কার্যকর হবে বলে নোটিশে জানানো হয়েছে।
অনলাইনে এপয়েন্টমেন্ট এই ওয়েব অ্যাডেস্রে ভিজিট করতে হবে। appointment.bdhckl.gov.bd

ওই ঠিকানায় প্রবেশের পর প্রদর্শিত ফরমে প্রথমেই পাসপোর্ট ডেলিভারি স্লিপ নম্বরটি লিখে সার্চে ক্লিক করার পর স্বয়ংক্রিয়ভাবে নামের বক্সে নাম প্রদর্শিত হলে অ্যাপয়েন্টমেন্ট নেয়ার জন্য বাকি ঘরগুলো পূরণ করে সাবমিটে ক্লিক করতে। Slip Number Not Found প্রদর্শিত হলে ফরমটি আর পূরণ করা যাবে না। কারণ, আবেদনকারীর পাসপোর্টটি এখনও প্রস্তুত নয়।

উল্লেখ্য, আবেদনকারীর পাসপোর্টটি ঢাকা থেকে প্রিন্টপূর্বক হাইকমিশনে না পৌঁছালে Slip Number Not Found বার্তাটি প্রদর্শিত হতে থাকবে।
“Submit” এ ক্লিক করার পর ওই পেইজেই “Submit” এর নিচে পাসপোর্ট বিতরণের তথ্য অংশে পাসপোর্ট সংগ্রহের জন্য বিস্তারিত তথ্য দেখা যাবে। অ্যাপয়েন্টমেন্টের তথ্য দ্রুত খুঁজে পেতে এ অংশের সার্চ অপশন ব্যবহার করতে হবে। আবেদনকারীকে দেয়া অ্যাপয়েন্টমেন্টের একটি ছবি তুলে প্রিন্ট করে রাখতে হবে।

পাসপোর্ট সংগ্রহের জন্য ১৬৬ জালান বেসার, পেকান আম্পাং এ ঠিকানায় অবস্থিত হাইকমিশনের পাসপোর্ট সেন্টারে মূল আবেদনকারীকে যেতে হবে।
অনলাইনভিত্তিক এপয়েন্টমেন্ট কার্যকর করার পর থেকে ইতোপূর্বে হাইকমিশন থেকে ১৮/০৫/২০২০ ইং তারিখে ৬৯৮ নং স্মারকে জারীকৃত পত্রে টেলিফোনে পাসপোর্ট বিতরণ সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তিটি বাতিল বলে গণ্য হবে।
সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, গত তিন মাসে ২৩ হাজার পাসপোর্ট বিতরণ করেছে বাংলাদেশ হাইকমিশন। এছাড়া গত জুন থেকে আগস্ট পর্যন্ত ডাকযোগে পাসপোর্টের আবেদন জমা পড়েছে প্রায় ৫০ হাজারের বেশি। গত ২৭ মে সংশ্লিষ্ট বিভাগ বিশেষ ব্যবস্থায় সীমিত আকারে পাসপোর্ট বিতরণ শুরু করে।
সে সময় প্রতিদিন ৩ থেকে ৪শ’ পাসপোর্ট বিতরণ করা হয়েছে। চলমান করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে মালয়েশিয়ায় মুভমেন্ট কন্ট্রোল ওয়ার্ডার (আর এমসিও) কার্যকর রয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে মালয়েশিয়া সরকার প্রদত্ত সকল নিয়ম-কানুন/বিধি নিষেধ সতর্কতা মেনে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে ১৬৬ জালান বেসার, পেকান আম্পাং এ অবস্থিত হাইকমিশন অফিস থেকে এ সেবা দেয়া হয়েছে বলে জানালেন, পাসপোর্ট ও ভিসা শাখার প্রধান কাউন্সিলর মো. মশিউর রহমান তালুকদার।

তবে মালয়েশিয়া সরকারের বেঁধে দেয়া আরএমসিওর ঝুকিঁর মধ্যে এসওপি মেন্টেইন করে সীমিত থেকে ব্যাপক পরিসরে বর্তমানে প্রতিদিন ৫ থেকে ৬শ’ জনকে সেবা প্রদান করা হচ্ছে বলে জানা গেছে।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error: Content is protected !!