ভারতের সাথে উত্তেজনার মাাঝেই নেপালের ১০ জায়গা দখলে নিল চীন

ডেস্ক রিপোর্ট:

চীন সীমান্তের লাদাখে উত্তেজনায় গত ১৫ জুন ২০ ভারতীয় সেনা নিহত হয়। এ নিয়ে উত্তেজনা রয়েই গেছে। এরই মধ্যে নেপালের প্রায় ১০টি জায়গায় মোট ৩৩ হেক্টর জমি চীন দখল করেছে চীন।  এনডিটিভির খবরে এ তথ্য জানা গেছে। 

তবে সবটাই কী ভারতের ওপর চাপ তৈরি করার জন্য? নাকি এখন গোটা পৃথিবী করোনা নিয়ে ব্যস্ত থাকার মাঝে ক্রমেই নিজের এলাকা বৃদ্ধির চেষ্টা চালাচ্ছে চীন? নেপালে চীনের জমি দখলের খবর সামনে আসার পর এই প্রশ্নগুলোই ঘুরপাক খাচ্ছে।

নেপালের কৃষি মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে ১১ স্থানের একটি তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে, যেখানে দেখা গেছে, চীন নেপালের প্রায় ৩৩ হেক্টর জমি নিজের দখলে নিয়েছে এবং সেখানে সেনা চৌকি তৈরির প্রক্রিয়া চালাচ্ছে। আর স্বাভাবিক সীমানা হিসেবে বয়ে চলা নদীর গতিপথও সেই কারণে বদলে দিয়েছে চীন।

এর মধ্যে ১০ হেক্টর জমি দখল করা হয়েছে হুমলা জেলায়, যেখানে চীনা নির্মাণের ফলে বাগদারে খোলা নদীর গতিপথ পাল্টে গেছে। এছাড়া রাসুয়া জেলায় একাধিক নদীর গতিপথ পাল্টে দিয়ে চীন ৬ হেক্টর জমি দখল করেছে। সিন্ধুপালচক জেলার ১১ হেক্টর জমি খারানে খোলা ও ভোতেকোশি নদীর স্বাভাবিক সীমানা মেনে তিব্বতের মধ্যে পড়ছে দাবি করে দখল করেছে চীন।

এই সব কারণেই নেপালের কৃষি মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে সরকারকে সতর্ক করে দিয়ে বলা হয়েছে, চীনের আগ্রাসনের ফলে নেপালের আরও জমি চীনের মধ্যে চলে যেতে পারে। যদিও নেপাল সরকারের মনোভাব ঠিক কী তা এখনও স্পষ্ট নয়। সম্প্রতি নেপালের সরকারের পক্ষ থেকে চীন সরকারের নেতৃত্বে একটি ওয়ার্কশপ আয়োজন করা হয়, যে ভার্চুয়াল ওয়ার্কশপের মূল বিষয়ই ছিল, কীভাবে প্রশাসন আরও‌ সুশৃঙ্খলভাবে চালানো যায়। ফলে রাজনৈতিক মহল মনে করছে, এর মাধ্যমেই নেপালের প্রশাসনের সরাসরি শি জিনপিংয়ের নাক গলানো শুরু হয়ে গেল। তারপর জমি দখল হলেও নেপালের কী করার? 

এদিকে চীনের আগ্রাসনের জবাব দিতে বড়সড় পদক্ষেপ শুরু করেছে মোদি সরকার। কলকাতা-সহ দেশের সমস্ত বিমানবন্দর ও পোর্টে চীনা পণ্য খালাসে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে কাস্টমস। কাস্টমসের তরফ থেকে পণ্য খালাসে জড়িত সমস্ত আধিকারিকদের অভ্যন্তরীণভাবে নির্দেশ দেয়া হয়েছে।কলকাতা  ছাড়াও মুম্বাই ও চেন্নাই বিমানবন্দর ও পোর্টে এই নির্দেশিকা পাঠানো হয়েছে।সূত্র: নিউজ এইটটিন

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error: Content is protected !!