বাংলাদেশে হঠাৎ বেড়েছে করোনায় মৃত্যু, কমেছে আক্রান্ত

বাংলাদেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও ৪১ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মোট মৃত্যু হয়েছে চার হাজার ৫৯৩ জনের।নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন এক হাজার ৮২৭ জন। সবমিলিয়ে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে তিন লাখ ৩১ হাজার ৭৮ জনে।

বুধবার (৯ সেপ্টেম্বর) বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে জানানো হয়, ঢাকা সিটিসহ দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে ও বাড়িতে উপসর্গবিহীন রোগীসহ গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন দুই হাজার ৯৯৫ জন। এ পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়েছেন দুই লাখ ৩০ হাজার ৮০৪ জন।

সারাদেশে সরকারি ও বেসকারি ব্যবস্থাপনায় ৯৪ টি ল্যাবে নমুনা সংগ্রহ ও পরীক্ষা হয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগ্রহ হয়েছে ১৪ হাজার ৭৯২টি। মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ১৪ হাজার ৭৫৫ টি। এ পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১৬ লাখ ৭৪ হাজার ৪৫২ টি। নমুনা পরীক্ষা বিবেচনায় শনাক্তের হার ১৯ দশমিক ৭৭ শতাংশ এবং শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৬৯ দশমিক ৭১ শতাংশ এবং শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুর হার এক দশমিক ৩৯ শতাংশ।
এছাড়া ২৪ ঘণ্টায় মৃত ৪১ জনের মধ্যে ২৯ জন পুরুষ ও নারী ১২ জন। তাদের মধ্যে ঢাকা বিভাগে ১৭ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে ছয়জন, রাজশাহী বিভাগে পাঁচজন, খুলনা বিভাগে চারজন, রংপুর বিভাগে পাঁচজন, সিলেট বিভাগে দুইজন এবং বরিশাল ও ময়মনসিংহ বিভাগে একজন করে দুইজন রয়েছেন। হাসপাতালেই মারা গেছেন ৩৬ জন, বাড়িতে তিনজন এবং মৃত অবস্থায় হাসপাতালে গেছেন দুইজন।

মৃতদের বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, ৬০ বছরের ঊর্ধ্বে ২৪ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ১০ জন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে চারজন, ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে একজন, ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে একজন, ১১ থেকে ২০ বছরের মধ্যে একজন, শূন্য থেকে ১০ বছরের মধ্যে একজন রয়েছেন।গত ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশনে এসেছেন ৪০০ জন ও আইসোলেশন থেকে ছাড় পেয়েছেন ৫৭৩ জন। এ পর্যন্ত আইসোলেশনে এসেছেন ৭৫ হাজার ৫৩৩ জন। আইসোলেশন থেকে ছাড়পত্র নিয়েছেন ৫৬ হাজার ৭৯৯ জন। বর্তমানে আইসোলেশনে আছেন ১৮ হাজার ৭৩৪ জন।

দেশে গত ৮ মার্চ করোনা ভাইরাসে সংক্রমিত (কোভিড-১৯) প্রথম রোগী শনাক্ত হয়। এর ১০ দিন পর ১৮ মার্চ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রথম একজনের মৃত্যু হয়।এর একদিন আগে মঙ্গলবার (৮ সেপ্টেম্বর) আরও ১ হাজার ৮৯২ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়। এছাড়া আক্রান্তদের মধ্যে মারা যান আরও ৩৬ জন।
বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ২ কোটি ৭৭ লাখ ৩৮ হাজার ছাড়িয়েছে। আর এ মহামারিতে আক্রান্ত হয়ে বিশ্বে মৃতের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৯ লাখ।

করোনা ভাইরাসে আক্রান্তদের সংখ্যা ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্যানুযায়ী, বুধবার (৯ সেপ্টেম্বর) সকাল পর্যন্ত বিশ্বের বিভিন্ন দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ৯ লাখ ১ হাজার ৮৬৯ জনের এবং আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২ কোটি ৭৭ লাখ ৩৮ হাজার ৯৭১ জনে। এর মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১ কোটি ৯৮ লাখ ৩২ হাজার ৬৯০ জন।

বিশ্বে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়ে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে ১ লাখ ৯৪ হাজার ৩২ জন। বিশ্বে সর্বোচ্চ আক্রান্তের সংখ্যাও এ দেশটিতে। এ নিয়ে এখানে ৬৫ লাখ ১৪ হাজার ২৭১ জন এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন।

আক্রান্তের সংখ্যায় দ্বিতীয় অবস্থানে এবং মৃতের সংখ্যায় তৃতীয় অবস্থানে আছে ভারত। দেশটিতে এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ৪৩ লাখ ৭০ হাজার ১২৮ জন। এবং এখন পর্যন্ত মারা গেছেন ৭৩ হাজার ৯২৩ জন।

করোনা আক্রান্তে তৃতীয় ও মৃতের সংখ্যায় দ্বিতীয় অবস্থানে আছে ব্রাজিল। দেশটিতে এখন পর্যন্ত এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ১ লাখ ২৭ হাজার ৫১৭ জন। আক্রান্ত হয়েছেন ৪১ লাখ ৬৫ হাজার ১২৪ জন।আক্রান্তের দিক থেকে চতুর্থ অবস্থানে আছে রাশিয়া। দেশটিতে আক্রান্ত ১০ লাখ ৩৫ হাজার ৭৮৯ জন। আর মৃতের সংখ্যা ১৭ হাজার ৯৯৩ জন।

সুস্থতার দিক থেকেও প্রথম অবস্থানে আছে যুক্তরাষ্ট্র (৩৭ লাখ ৯৬ হাজার ৭৬০ জন), দ্বিতীয় অবস্থানে আছে ভারত (৩৩ লাখ ৯৮ হাজার ৮৪৪ জন), এবং তৃতীয় অবস্থানে আছে ব্রাজিল (৩৩ লাখ ৯৭ হাজার ২৩৪ জন)।

গত বছরের ডিসেম্বরের শেষ দিকে চীনের হুবেই প্রদেশের উহান থেকে করোনাভাইরাস সংক্রমণ শুরু হয়। এখন পর্যন্ত বাংলাদেশসহ বিশ্বের ২১৫টি দেশে ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে কোভিড-১৯।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error: Content is protected !!