বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত কাউন্সিলর নির্বাচিত হলেন ফ্রান্সে

মহামারি করোনা সংকটের কারণে ফ্রান্সের স্থগিত হওয়া দ্বিতীয় ধাপের পৌরসভা নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। এতে কাউন্সিলর হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন এক বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ফরাসি নাগরিক। অংশগ্রহণ করেন আরও বেশ কয়েকজন। বাংলাদেশি কমিউনিটির জন্য কাজ করবেন বলে প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন নির্বাচিত কাউন্সিলর।

করোনার কারণে ফ্রান্সে স্থগিত হওয়া দ্বিতীয় ধাপে পৌরসভা নির্বাচন সম্পন্ন। প্রথমধাপের মতো দ্বিতীয়ধাপেও প্রাবাসীরা অনেকে এই নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেন। আর নির্বাচনে অংশগ্রহণে বাংলাদেশিদের মধ্যে প্যানেল নির্বাচিত হলেও একজন কাউন্সিলর নির্বাচিত হয়েছেন।

নির্বাচনে অংশগ্রহণকারী বাংলাদেশিরা বলছেন, তাদের দেখে নতুন প্রজন্ম মূলধারার রাজনীতির সাথে যুক্ত হতে উৎসাহিত হবেন।

প্রবাসীরা বলছেন, বাংলাদেশিদের বিভিন্ন রকমের সমস্যা হচ্ছে, তা প্রশাসনিকভাবে আমরা আদায় করতে পারব না। সেটা আদায় করার জন্য আমাদের মূলধারার রাজনীতির সাথে জড়িত হতে হবে।

নির্বাচনে জয়ী শারমিন হক বলেছেন, তিনি বাংলাদেশি কমিউনিটির জন্য কাজ করবেন।

ফ্রান্সে প্রথম নির্বাচিত কাউন্সিলর শারমিন হক আব্দুল্লাহ বলেন, আমি ফ্রান্সে পৌরসভার কাউন্সিলর হলেও বিশ্বব্যাপী বাঙালির দোয়া ও সমর্থন পেয়েছি। এটা আমার জন্য উৎসাহের জায়গা। এজন্য সকল বাঙালির প্রতি আমার আন্তরিক শুভেচ্ছা কৃতজ্ঞতা।

চুরি ছিনতাইয়ের পাশাপাশি করোনাকালীন সমস্যাগুলো এখানকার নানা সমস্যাগুলো মূলধারায় তুলে ধরা কম। তবে শারমিন হকের মতো কাউন্সিলর কিংবা পরবর্তীতে মেয়র নির্বাচিত হলে পরবর্তীতে এ দেশে বসবারত প্রবাসী বাংলাদেশিদের সমস্যা তুলে ধরা যাবেস হজেই।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error: Content is protected !!