প্রাইমারী নির্বাচনে বাংলাদেশী আমেরিকানদের অবস্থান

বিপুল উৎসাহ-উদ্দীপনা ও শান্তিপূর্ণভাবে শেষ হলো ডেমোক্র্যাট প্রাইমারী নির্বাচন। ২৩ জুন মঙ্গলবার এই নির্বাচনে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। হেরে গেলেন বাংলাদেশী প্রার্থীরা। 

যদিও অ্যাবসেন্টি ভোট গণনা এখনো বাকী রয়েছে। তবে মঙ্গলবারের নির্বাচনের প্রাথমিক ফলাফলে বাংলাদেশী বংশোদ্ভুত প্রার্থীদের মধ্যে কমিটিওম্যান পদে জামিলা আক্তার উদ্দিন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় এবং স্ট্যাটান আইল্যান্ডের রিচমন্ড কাউন্টি ডেমোক্রোটিক ডেলিগেট অন জো বাইডেন স্লেট ও জুডিশিয়াল ডেলিগেট পদে জয়ী হয়েছেন মোহাম্মদ এ কে চৌধুরী জয়ী হয়েছেন বলে জানা গেছে। 

এদিকে নির্বাচনে বরাবরের মতো ভোটার উপস্থিতর সংখ্যা কম থাকলেও এবার বাংলাদেশী বংশোদ্ভুত প্রার্থীদের সংখ্যা বেশী অংশ নেয়ায় বাংলাদেশী কমিউনিটির অংশগ্রহণ ছিলো লক্ষণীয়। নির্বাচনে বিভিন্ন পদে অন্তত ১৫জন বাংলাদেশী বংশদ্ভুত অংশ নেন। 

ইউএস কংগ্রেসে বর্তমানরাই জয়ী হয়েছেন। সর্বশেষ প্রাপ্ত ফলাফলে মঙ্গলবারের নির্বাচনে বাংলাদেশী অধ্যুষিত নিউইয়র্কের ইউএস কংগ্রেশনাল ডিষ্ট্রিক্ট-৬ থেকে পুন: নির্বাচিত হয়েছেন বর্তমান কংগ্রেসওম্যান গ্রেস মেং। তার প্রতি বিপুল সংখ্যক বাংলাদেশীর সমর্থন ছিলো।

অপরদিকে কংগ্রেশনাল ডিষ্ট্রিক্ট-৫ থেকে পুনরায় প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে প্রবীণ ও বর্তমান কংগ্রেসম্যান গ্রেগরী মিক্স বিজয়ী হয়েছেন। এই আসনে গ্রেগরী মোট ৩৩,০৯৭ ভোট পেয়েছেন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী বাংলাদেশী-আমেরিকান সানিয়াত চৌধুরী পেয়েছেন ৮,৯৮৬ ভোট।  বাংলাদেশী অধ্যুষিত কংগ্রেশনাল ডিষ্ট্রিক্ট-১৪ থেকে পুন: নির্বাচিত হলেন বর্তমান কংগ্রেসওম্যান আলেকজান্ডার ওকাসিও-কর্টেজ। তিনি পেয়েছেন ২৭,১০৩ ভোট, স্যামুয়ের স্লোয়ান পেয়েছেন ৯২৩ টি ভোট।

এদিকে বাংলাদেশী অধ্যুষিত ষ্টেট সিনেট ডিষ্ট্রিক্ট-৩২ থেকে পুন: নির্বাচিত হলেন বর্তমান সিনেটর লুইস সেপুলভেদা। যিনি বাংলাদেশী কমিউনিটিতে ‘লুইস ভাই’ নামে সমধিক পরিচিত। এই আসনে লুইস সেপুলভেদা পেয়েছেন ৭,০৫৫ অর্থাৎ ৫৩ দশমিক ৭% ভোট। তার  প্রতিদ্বন্দ্বী পামেলা পেয়েছেন ৪,৫০৩ (৩৪ দশমিক ৩% ভোট)।

অপরদিকে  নির্বাচনে নিউইয়র্ক ষ্টেটের অ্যাসেম্বলী ডিষ্ট্রিক্ট-৩৭ আসনে বিজয়ী বর্তমান অ্যাসেম্বলীওমান ক্যাথেরিন নোলান পেয়েছেন ৫২ দশমিক ৫% অর্থাৎ ৪,৩১৪ ভোট।  তার প্রতিদ্বন্দ্বী মেরী জোবায়দা পেয়েছেন ৩৩% অর্থাৎ ২,৭১১ ভোট। এই আসনের ৩জন প্রার্থীর মধ্যে মেরী জোবায়দার আসন দ্বিতীয়।

অ্যাসেম্বলী ডিষ্ট্রিক্ট-৩৪ আসনে জয় চৌধুরী পেয়েছেন ৯৪৩ ভোট।  এই আসনে বিজয়ী জেসিকা গঞ্জালেজ-রোজাস পেয়েছেন ২,৫১৪ ভোট। বাংলাদেশী অধ্যুষিত নিউইয়র্ক সিটির কুইন্স বরো প্রেসিডেন্ট পদে ডনোভান রিচার্ড ৩৯,৮৬১ ভোট পেয়ে এগিয়ে রয়েছেন। তার প্রতিদ্ববন্দ এলিজাবেথ ক্রাউলী পেয়েছেন ৩০,৭০৪ ভোট।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error: Content is protected !!