‘নিষিদ্ধ’ হলেন জাভেদ ওমর, ক্রিকেটে পাড়ায় তোলপাড়

জাভেদ ওমর বেলিম। তার ডাক নাম গোল্লা। তিনি জাতীয় দলে মূলত ওপেনার হিসেবে খেলতেন। একজন দক্ষ ফিল্ডার হিসেবে তার সুনাম আছে।ওয়ানডেতে ওপেনিংয়ে নেমে ইনিংসের শেষ পর্যন্ত খেলে অপরাজিত খাকার রেকর্ড আছে তার । তবে ক্রিকেট ছেড়েছেন ১১ বছর হয়েছে। তবু ক্রিকেটের সঙ্গেই ছিলেন বাংলাদেশের সাবেক ক্রিকেটার জাভেদ ওমর । গত কয়েক মাস ধরে বাংলাদেশ নারী দলের ম্যানেজারের দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন তিনি। তবে ভবিষ্যতে আর কখনই বাংলাদেশের ক্রিকেটের সঙ্গে যুক্ত থাকা হবে না তার।

অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠিত ২০২০ নারী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে বাংলাদেশ দলের ম্যানেজারের দায়িত্বে থাকা জাভেদ ওমরের গতিবিধি সন্দেহজনক মনে হওয়ায় বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডকে (বিসিবি) বিশেষ নির্দেশনা পাঠিয়েছে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)।

নির্দেশনায় বলা হয়েছে, বোর্ড অনুমোদিত ক্রিকেটীয় কর্মকাণ্ডে জাভেদ ওমরকে যেন কখনই অন্তর্ভুক্ত করা না হয়। আইসিসির এই নির্দেশনা মোতাবেক জাভেদ ওমরকে সব ধরনের ক্রিকেটীয় কর্মকাণ্ড থেকে দূরে রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিসিবি। ক্রিকেট বিষয়ক ওয়েবসাইট ক্রিকবাজ এমনই খবর প্রকাশ করেছে।

বাংলাদেশের সাবেক এই ওপেনারের বিরুদ্ধে তদন্ত করে আইসিসি নিশ্চিত হয়েছে, নারী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ চলাকালীন দলের অভ্যন্তরীণ তথ্য বাইরে সরবরাহ করেছেন বাংলাদেশের ম্যানেজারের দায়িত্বে থাকা জাভেদ ওমর।

বিসিবির একটি বিশ্বস্ত সূত্র এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছে বলে জানিয়েছে ক্রিকেট বিষয়ক ওয়েবসাইটটি। বিসিবির সর্বোচ্চ পর্যায়ের সূত্রটি বলেছে, ‘ভবিষ্যতে কোনো ধরনের ক্রিকেট ইভেন্টে জাভেদ ওমরকে যুক্ত না করার জন্য আইসিসি আমাদের নির্দেশনা দিয়েছে। বিষয়টি আমাদের প্রচন্ড হতাশ করেছে।’

জাভেদ ওমরের বিরুদ্ধে যথেষ্ঠ তথ্য-প্রমাণাদি সংগ্রহের পরই বিসিবিকে এমন নির্দেশনা দিয়েছে আইসিসি। জানা গেছে, জাভেদ ওমর বর্তমান খেলোয়াড় না হওয়ায় আর কোনো পদক্ষেপ নেয়নি আইসিসি। বিসিবি যেহেতু তাকে কোনো ধরনের ক্রিকেটীয় কর্মকাণ্ডে রাখছে না, তাতেই তার শাস্তি নিশ্চিত হয়ে যাচ্ছে বলে মনে করছে বিশ্ব ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থাটি।

নারী টি-টোয়ন্টি বিশ্বকাপে ম্যানেজারের দায়িত্ব পালন করার মধ্য দিয়ে বিসিবির সঙ্গে চুক্তি শেষ হয় জাভেদ ওমরের। এরপর চুক্তি বাড়ানোসহ ভিন্ন ভূমিকায় বাংলাদেশের ক্রিকেটে কাজ করার জন্য বিসিবির অনেকের কাছেই নিজের ইচ্ছার কথা জানিয়েছেন বাংলাদেশের হয়ে ৪০ টেস্ট ও ৫৯ ওয়ানডে খেলা জাভেদ ওমর। কিন্তু আইসিসির নির্দেশনা পাওয়ায় তাকে কোনো ক্রিকেটীয় কর্মকাণ্ডে যুক্ত করেনি ক্রিকেট বোর্ড।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.