November 28, 2020

মাই পেটারসন. লাইফ

ভয়েস অফ দ্যা কমিউনিটি

ঢাবিতে ‘র‌্যাগ ডে’ নিষিদ্ধ নয়, দুঃখ প্রকাশ প্রশাসনের

প্রাচ্যের অক্সফোর্ডখ্যাত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) ক্যাম্পাসে ‘র‌্যাগ ডে’ উদযাপন নিষিদ্ধ নয় বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ। বৃহস্পতিবার (৩ সেপ্টেম্বর)এক সংশোধিত বিজ্ঞপ্তিতে এ সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয়েছে। একইসঙ্গে গতকাল বুধবার প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তিতে একাডেমিক কাউন্সিলের সিদ্ধান্ত অসাবধানতাবশত ভিন্নভাবে উপস্থাপিত হয়েছে বলেও জানানো হয়েছে।

আজ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে দেওয়া বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গতকাল বুধবার জনসংযোগ দপ্তর কর্তৃক প্রেরিত প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে ‘র‌্যাগ-ডে নিষিদ্ধ’ সংক্রান্ত তথ্যটি অসাবধানতাবশত ভিন্নভাবে উপস্থাপিত হয়েছে। এজন্য দুঃখিত।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, মূলত একাডেমিক কাউন্সিলের সিদ্ধান্ত ছিল; র‌্যাগ-ডে পালন নামে ক্যাম্পাসে বা আবাসিক হলে অনাকাঙ্খিত, অমানবিক, অসৌজন্যমূলক, শৃঙ্খলা-পরিপন্থী কোনো আচরণ যাতে সংঘটিত না হয়, তৎপ্রতি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে সতর্ক নজর রাখার জন্য বলা হয়।

‘শিক্ষা সমাপনী’, গ্র্যাজুয়েশন উৎসব পালনের লক্ষ্যে অনুষ্ঠান, উৎসব, বর্ণাঢ্য র‌্যালি ইত্যাদি আয়োজনের জন্য নীতিমালা প্রণয়ন করতে হবে জানিয়ে ঢাবির প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, এজন্য ৫ সদস্যের কমিটি গঠন করা হলো। কমিটির আহ্বায়ক করা হয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রোভাইস চ্যান্সেলরকে (প্রশাসন)। আর কলা অনুষদ, জীববিজ্ঞান অনুষদ ও বিজনেস স্টাডিজ অনুষদ ডিনদের সদস্য করে প্রক্টরকে সদস্য সচিব করা হয়েছে।
এদিকে, র‌্যাগ ডে উৎসব নয়, র‌্যাগিং বন্ধে বিজ্ঞপ্তি দিয়েছিলো ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। গতকালের ঢাবির বিজ্ঞপ্তিতে র‌্যাগিং এর বিষয়টি ভুলভাবে উপস্থাপিত হয়েছে। শিগগিরই সংশোধনী করে বিজ্ঞপ্তি দেবে প্রশাসন বলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য মো. আখতারুজ্জামান।

বৃহস্পতিবার (৩ সেপ্টেম্বর) সকালে এ তথ্য জানান তিনি। তিনি বলেন, শিক্ষা সমাপনী অনুষ্ঠান বা গ্র্যাজুয়েশন অনুষ্ঠান বন্ধ হয়নি।

এ বিষয়ে ঢাবি উপাচার্য অধ্যাপক মো. আখতারুজ্জামান বলেন, র‌্যাগ ডে উদযাপন করতে গিয়ে অনেক সময় কিছু অনাকাঙ্খিত ঘটনা ঘটানো হয়। তাই যেসব উদযাপন এ রকম অনাকাঙ্খিত ঘটনার জন্ম দেয় সেগুলো নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। তবে মার্জিত উপায়ে আয়োজিত বিদায় অনুষ্ঠান বা সংবর্ধনা অনুষ্ঠান আয়োজনে কোনো বাধা থাকবে না।

error: Content is protected !!