‘ঘূর্ণিঝড় লরা’ ভয়ংকর রূপ নিচ্ছে, যুক্তরাষ্ট্রের দিকে ধেয়ে আসছে

কয়েকঘণ্টার মধ্যেই ‘ঘূর্ণিঝড় লরা’ ভয়ংকর রূপ নিয়ে শক্তিশালী হারিকেনে পরিণত হয়েছে। ঘূর্ণিঝড়টি অতিমাত্রায় ভয়ংকার রুপ ধারণ করে যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাস ও লুইজিয়ানার উপকূলের দিকে ধেয়ে আসছে। এটি চার মাত্রার ঘূর্ণিঝড় হয়ে বুধবার গভীর রাত বা বৃহস্পতিবার ভোরের দিকে আঘাত হানতে পারে বলে জানিয়েছে সিএনএন।

বুধবার (২৬ আগস্ট) ইউএস ন্যাশনাল হারিকেন সেন্টার (এনএইচসি) জানিয়েছে ঘূর্ণিঝড়র লরা এই মুহূর্তে তিন নম্বর ক্যাটাগরিতে রয়েছে। এর বাতাসের গতি ঘণ্টায় ১১৫ কিলোমিটার রয়েছে। বলা হচ্ছে, কয়েক ঘণ্টার মধ্যে এর গতি বেড়ে ভয়ংকর আকার ধারণ করেছে।

ধ্বংসক্ষমতা অনুযায়ী হারিকেনকেএক থেকে পাঁচ মাত্রার পাঁচটি ক্যাটাগরিতে ভাগ করা হয়।

শক্তিশালী এই ঘূর্ণিঝড়টির যাত্রাপথে অন্তত দুই কোটি মানুষের বাস। ইতোমধ্যে উপকূলীয় এলাকা থেকে পাঁচ লাখ মানুষকে নিরাপদ স্থানে সরে যাওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

ঘূর্ণিঝড় পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, লরা আঘাত হানার সময় উপকূলের কোথাও কোথাও ১৫ মিটার উচ্চতা পর্যন্ত পানির ‘ধ্বংসাত্মক ঢেউয়ের’ সৃষ্টি হতে পারে। এর ফলে ওই এলাকাগুলোতে হঠাৎ পানিতে প্লাবিত হতে পারে।

ঝড়ের গতি ১১৭ কিলোমিটারের বেশি থাকলে ঘূর্ণিঝড়কে অতি বিপজ্জনক বোঝাতে ব্যবহার করা হয় হারিকেন শব্দ ।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error: Content is protected !!