November 28, 2020

মাই পেটারসন. লাইফ

ভয়েস অফ দ্যা কমিউনিটি

গণধর্ষণসহ সংখ্যালঘু নির্যাতনের প্রতিবাদে নিউইয়র্কে প্রবাসীদের সমাবেশ

সাভারের কিশোরী নীলা রায় হত্যা, খাগড়াছড়িতে পাহাড়ি নারীকে গণধর্ষণসহ বাংলাদেশে সংখ্যালঘুদের ওপর অব্যাহত নির্যাতনের প্রতিবাদে নিউইয়র্কে প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে যুক্তরাষ্ট্রস্থ হিন্দু কোয়ালিশন।স্থানীয় সময় মঙ্গলবার বিকেল জ্যাকসন হাইটসের ডাইভার্সিটি প্লাজায় হিন্দু কোয়ালিশনের সদস্যরাসহ নিউইয়র্ক হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান সম্প্রদায়ের মানুষ অংশগ্রহণ করেন।

সমাবেশে উপস্থিত বক্তারা বলেন, বাংলাদেশে বৌদ্ধ ভিক্ষুর কল্যাণে যখন দেশব্যাপী বৌদ্ধ ধর্মের ইতিহাস ব্যাপকভাবে প্রচার হচ্ছে ঠিক সেই সময় একটি সংঘবদ্ধ কুচক্রি মহল বাংলাদেশ থেকে বৌদ্ধ ধর্মকে বিলুপ্ত করার চেষ্টা করছে।

দেশব্যাপী সংখ্যালঘু ও আদীবাসীদের উপর প্রতিনিয়ত অত্যাচার, খুন ও ধর্ষণের মতো ঘটনা ঘটছে। ঢাকার সাভারের নিরীহ স্কুলছাত্রী নীলা রায়কে নির্মমভাবে খুন করা হয়েছে।

নীলা রায় হত্যা মামালার প্রধান আসামি মিজানুর রহমান চৌধুরীর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান বক্তারা। একই সাথে এসব ঘটনার দ্রুত বিচারের দাবিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সুদৃষ্টি কামনা করা হয়।

সভায় বক্তব্য দেন- সিতাংশু গুহ, মং প্ররু, সিদ্ধার্থ বড়ুয়া, দীনেশ মজুমদার, গোবিন্দ বানিয়া, অমল বড়ুয়া, অশোক বড়ুয়া (ইভান), বিনয় চাকমা, শুভাশিস বড়ুয়া, রনবীর বড়ুয়া, ড. টমাস দুলু রায়, বিধান রায়, পীযুষ, মত্রিশর, মংক্যশৈ মারমা, রাসেল চাকমা, নিরাময় তচঙ্গ্যা প্রমুখ।

প্রতিবাদ সভার বক্তারা নীলা রায় হত্যাকারী মিজানের ফাঁসি, ভিক্ষু শরনংকর থেরকে নির্যাতন, ডা. জাফরউল্লাহর সাম্প্রদায়িক উসকানীমুলক বক্তব্য, টাঙ্গাইলে শ্রাবন হালদার নামক যুবকেকে মিথ্যা ধর্মানুভূতির দোহাই দিয়ে সাম্প্রদায়িক হামলা।

লুটপাট, শ্রাবন্তী দত্তকে অপহরণ ও জোর পূর্বক ধর্মান্তর, পাহাড়ে সেটেলার কর্তৃক পাহাড়িদের অবিরত ধর্ষণ ও দখলদারিত্বের চিত্র তুলে ধরে এসব ঘটনার পৃথক পৃথক দ্রুত বিচার দাবি করেন প্রবাসী বাংলাদেশিরা।

error: Content is protected !!