কৃষ্ণাঙ্গ ব্রকসকে হত্যায় অভিযুক্ত শ্বেতাঙ্গ পুলিশ কারাগারে

ডেস্ক রিপোর্ট:

যুক্তরাষ্ট্রের আটলান্টায় একটি ফাস্টফুডের দোকানের সামনে কৃষ্ণাঙ্গ এক যুবককে হত্যার দায়ে অভিযুক্ত হওয়ার পরে শ্বেতাঙ্গ সাবেক এক পুলিশ কর্মকর্তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। গত সপ্তাহে আটলান্টায় কৃষ্ণাঙ্গ যুবক রেইসহার্ড ব্রুকসকে গুলি করে হত্যার জন্য অভিযুক্ত শ্বেতাঙ্গ পুলিশ কর্মকর্তা গাররেট রুলফকে ফুলটন কাউন্ট্রি জেলে পাঠানো হর্য়।

কারাগারের ওয়েবসাইটে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

মিনেসোটার মিনিয়াপোলিসে শ্বেতাঙ্গ পুলিশ কর্মকর্তা আফ্রিকান আমেরিকান জর্জ ফ্লয়েডকে হাতকড়া পড়ানো অবস্থায় শ্বাসরোধ করে হত্যার ঘটনায় তিন সপ্তাহের কম সময়ের মধ্যে আবার শ্বেতাঙ্গ পুলিশের গুলিতে ব্রুকস নিহত হয়। জর্জ ফ্লয়েড হত্যার ঘটনায় দেশব্যাপী বর্ণবাদ বিরোধী বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ার মধ্যেই এই হত্যার ঘটনা ঘটে।

গাররেট রুলফের সহকর্মী পুলিশ কর্মকর্তা ডেভিন ব্রোসনান ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী ছিলেন, তিনি এ ব্যাপারে তদন্তকারীদের কাছে ঘটনার ব্যাপারে সাক্ষ্য দেবেন, হত্যা মামলার অপর আসামী হিসেবে তিনি আদালতে আত্মসমর্পন করেন। আদালত তাকে জামিনে মুক্তি দিয়েছে।

গত শুক্রবার ওয়েন্ডির রেস্টুরেন্টে সামনের রাস্তায় গাড়িতে ২৭ বছরের ব্রুকসকে ঘুমন্ত অবস্থায় দেখতে পায় ব্রোসনান ও রুলফ। পুলিশ ২০ মিনিট ধরে ব্রুকসকে জিজ্ঞাসাবাদ করে, পরে এলকোহোল টেস্ট করে পজেটিভ ফলাফল পাওয়া যায়। নেশাগ্রস্ত অবস্থায় গাড়ি চালানোর জন্য পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করতে চাইলে ব্রুকস এতে বাধা দেয়। ব্রুকস পালানোর চেষ্টা করলে গাররেট রুলফ পেছন দিক থেকে গুলি করে ব্রুকসকে হত্যা করে। এ ঘটনাকে বর্ণবাদের বলি আখ্যা দিয়ে আন্দোলন করছেন মার্কিনীরা।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error: Content is protected !!