কুকুর দিয়ে শনাক্ত হবে করোনা

কুকুরের প্রখর ঘ্রাণশক্তিকে ব্যবহার করে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস শনাক্ত করা হবে। যুক্তরাজ্যের একদল বিশেষজ্ঞ তেমনটিই ভাবছেন।

তা হলো- পরীক্ষা, পরীক্ষা, পরীক্ষা। কিন্তু রোগীর বিপুল চাপ, কীটের সংকটসহ নানা কারণে ব্যাপকভাবে পরীক্ষার বিষয়টি অনেক দেশের জন্য কঠিন হয়ে উঠেছে। দ্রুত করোনা রোগী শনাক্তের মাধ্যমে এই মহামারিকে বাগে আনতে সম্ভাব্য একটা উপায় নিয়ে কাজ করছেন যুক্তরাজ্যের একদল বিশেষজ্ঞ। তারা করোনা শনাক্তের কাজে প্রশিক্ষিত কুকুর ব্যবহার করতে চান।
যুক্তরাজ্যের দাতব্য সংস্থাটির নাম ‘মেডিকেল ডিটেকশন ডগস’।

বিবিসি বলছে, সংস্থাটি ইতিমধ্যে ম্যালেরিয়া, ক্যানসার ও পারকিনসন রোগ শনাক্তে কুকুরকে প্রশিক্ষণ দিয়ে সফলতা পেয়েছে। এখন তারা করোনা শনাক্তে কুকুরকে প্রশিক্ষণ দিতে যাচ্ছে।

করোনা শনাক্তে কুকুর ব্যবহারের লক্ষ্যে মেডিকেল ডিটেকশন ডগস, লন্ডন স্কুল অব হাইজিন অ্যান্ড ট্রপিকাল মেডিসিন ও ডারহাম ইউনিভার্সিটি একসঙ্গে কাজ করবে। এ ব্যাপারে তারা ট্রায়াল শুরু করতে যাচ্ছে। প্রশিক্ষণের পর কুকুর করোনা শনাক্ত করতে পারে কি না, তা পরীক্ষা (ট্রায়াল) করে দেখবেন বিশেষজ্ঞরা।

মেডিকেল ডিটেকশন ডগস সংস্থার প্রধান ও আচরণ মনোবিজ্ঞানী ডা. ক্লেয়ার গেস্ট বলেন, করোনাভাইরাস প্রশিক্ষিত বিশেষ কুকুরের শনাক্ত করতে না পারার কোনো কারণই নেই।

তিনি বলেন, কুকুর কোভিড-১৯ শনাক্ত করতে পারবে বলে আমরা মোটামুটি নিশ্চিত।’ সংশ্লিষ্ট বিশেষজ্ঞরা বলছেন, গবেষণাটি সফল হলে, দ্রুত ও কার্যকরভাবে কোভিড-১৯ শনাক্ত করা সম্ভব হবে।

গুড নিউজ নেটওয়ার্ক সম্প্রতি এক প্রতিবেদনে জানায়, করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে যুদ্ধে যোগ দিতে যাচ্ছে কুকুর। এই লক্ষ্যে যুক্তরাজ্যের চিকিৎসাবিষয়ক একটি দাতব্য সংস্থা বিশেষ কুকুরকে প্রশিক্ষণ দিতে যাচ্ছে। কুকুরকে এমনভাবে প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে, যাতে তারা গন্ধ শুকে করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) শনাক্ত করতে পারে।

করোনার বিস্তার ঠেকাতে গত মাসের মাঝামাঝি সব দেশকে একটা বার্তা দিয়েছিলেন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মহাপরিচালক টেড্রোস আধানম গেব্রিয়াসুস।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error: Content is protected !!